বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৮:৩৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
শেখ মিলি পরিচয়ে করছেন প্রতারণা : চাকরি দেওয়ার নামে হাতিয়েছেন কয়েক লক্ষ টাকা-১ সানাকে উপজেলা চেয়ারম্যান বিজয়ী করতে আট চেয়ারম্যান মেয়র একট্টা সাংবাদিককে অবৈধ ভবন মালিক কর্তৃৃক হত্যার হুমকি, থানায় জিডি কার ইশারায় বহাল তবিয়তে ফায়ার সার্ভিসের দুর্নীতিবাজ এডি আনোয়ার! এবার বিআরটিসির অপতৎপরতাকারীদের বিরুদ্ধে রাজধানীর পল্টন থানায় মামলা বিআরটিসিতে জাতীয় শুদ্ধাচার কৌশল কর্মপরিকল্পনার আওতায় গণশুনানী অনুষ্ঠিত ১১৫ কোটি টাকার ক্ষতির মুখে বিআরটিসি!  টুঙ্গিপাড়ায় একাধিক মামলার ওয়ারেন্টভুক্ত আসামী তাহিন শেখ কে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ মুন্সিগঞ্জের লৌহজংয়ে মানবসেবা রক্তদান সংস্থার ৫ম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন ও রক্ত দাতাদের সম্মাননা স্বারক প্রদান আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করলেন শেখ সেলিম এমপি

ঘুরে দাঁড়িয়েছে বিআরটিসি : আসছে ৩৪০ এসি বাস : বছরে প্রায় অর্ধশত কোটি টাকা লাভে সংস্থাটি : বকেয়া ৬০ কোটি টাকা পরিশোধ

Reporter Name
  • Update Time : শুক্রবার, ৬ অক্টোবর, ২০২৩
  • ১৬০ Time View

এম শিমুল খান/রাসেল সরকার, ঢাকাঃ রাষ্ট্রীয় পরিবহন সংস্থা বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন করপোরেশন (বিআরটিসি) বহরে আগামী জানুয়ারিতে যুক্ত হচ্ছে ৩৪০টি এসি বাস। বর্তমানে বিআরটিসির বহরে থাকা মেরামত অযোগ্য ও অকেজো বাস গুলো সরিয়ে সেখানে নতুন বাস গুলো প্রতিস্থাপন করা হবে। এর মধ্য দিয়ে সিটি, আন্তজেলায় নির্ভরযোগ্য ও আরামদায়ক গণপরিবহন সুবিধা বাড়বে। বর্তমানে দেশের বিভিন্ন রুটে ১২ শতাধিক বাসে সেবা দিয়ে যাচ্ছে সংস্থাটি। বর্তমানে কঠোর মনিটরিং, ডিজিটালাইজেশন ও জবাবদিহিতা বাড়ায় এখন নিজস্ব আয়ে লাভে রয়েছে সংস্থাটি।

এ বিষয়ে বিআরটিসির চেয়ারম্যান মো. তাজুল ইসলাম বলেন, বিআরটিসির বাসের বহরে সংখ্যা অনেক বেড়েছে। বর্তমানে ৯৬ শতাংশ বাস নিয়মিত সড়কে চলছে। একই সঙ্গে নতুন জনবল নিয়োগ, গ্র্যাচুইটির সুযোগ সুবিধা দেওয়া হচ্ছে। নতুন করে আগামী জানুয়ারিতে ৩৪০ বাস বহরে যুক্ত হবে। ফলে নির্ভরযোগ্য ও আরামদায়ক পরিবহন সুবিধা বাড়বে।

তিনি আরো বলেন, ২০২১ সালের আগের মাসে বেতন বাবদ খরচ ছিল সাড়ে ৬ কোটি টাকা। এখন তা বেড়ে হয়েছে সাড়ে ৯ কোটি টাকা। বিআরটিসির হাতে আট মাস বেতন দেওয়ার টাকা জমা রয়েছে। শুধু মুনাফা নয়, বর্তমানে মাসে ১০ লাখ টাকা করে ঋণ পরিশোধ করতে শুরু করেছে বিআরটিসি।

বিআরটিসির নথি থেকে জানা যায়, ২০২০-২১ অর্থবছরে বিআরটিসি মুনাফা করেছে ২৫ কোটি ৩৩ লাখ টাকা। আর ২০২১-২২ অর্থবছরে ৩৫ কোটি ৭৫ লাখ টাকা। এই রেকর্ড ভেঙেছে ২০২২-২৩ অর্থবছরে। গত অর্থবছরে ৬৩১ কোটি টাকা আয় করেছে সংস্থাটি। খরচ হয়েছে ৫৮৪ কোটি টাকা। মুনাফা হয়েছে ৪৭ কোটি ৭১ লাখ টাকা। ট্রাক থেকে গত অর্থবছরে মুনাফা করেছে ১৯ কোটি ২১ লাখ টাকা। এর আগের পরিসংখ্যান ততটা সফল নয়। প্রতি বছরই ঘাটতি দিয়েই চলছিল সরকারের এই সেবা সংস্থাটি। একই সঙ্গে বিআরটিসির বহরে বাড়ছে গাড়িবহরের সংখ্যা। ২০২০ সালের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বিআরটিসির বহরে বাসের সংখ্যা ছিল ১ হাজার ৮২৪টি। কিন্তু সচল গাড়ি ছিল ১ হাজার ২১০টি। এর মধ্যে সড়কে চলত মাত্র ৮৮৫টি। হাজারখানেক বাস অচল, নয়তো অলস বসেছিল। চলতি বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত বিআরটিসির বাসের সংখ্যা ১ হাজার ৩৫০টি। এর মধ্যে সচল ১ হাজার ২৪৮টি। সড়কে চলছে ১ হাজার ২০৩টি। লিজে চলছে ৩৮টি বাস। পুরনো গাড়ি মেরামতে গাড়ির সংখ্যা বাড়ানো হয়েছে বলে জানালেন কর্মকর্তারা।

বকেয়া পরিশোধ : গত আড়াই বছরে বিআরটিসির যেসব অর্জন তার মধ্যে অন্যতম হলো বর্তমানে প্রধান কার্যালয়সহ ডিপো ও ইউনিটগুলোর সব কর্মকর্তা-কর্মচারীর বেতন-ভাতা নিজস্ব আয় থেকে প্রতি মাসের ১ তারিখে দেওয়া হচ্ছে। এ ছাড়া বর্তমানে তিন মাস পরপর গ্র্যাচুইটি, সিপিএফ ও ছুটি নগদায়নের টাকা অনলাইনে পরিশোধ হচ্ছে। গত দুই বছরে সিপি ফান্ড, গ্র্যাচুইটি এবং ছুটি নগদায়ন বাবদ ১ হাজার ১৫২ জন কর্মকর্তা-কর্মচারীকে ৩৭ কোটি ৫৮ লাখ টাকা পরিশোধ করা হয়েছে। বর্তমান চেয়ারম্যান যোগদানের পূর্ববর্তী সময়ের বকেয়া বেতন বাবদ দুই বছরে ৯ কোটি ৬৮ লাখ টাকা অনলাইন ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের নিজ নিজ ব্যাংক হিসাবে পরিশোধ করা হয়েছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2022 agamirbangladesh24.com
Developed by: A TO Z IT HOST
Tuhin